E-Ration Card download 2023: কিভাবে রেশন কার্ড স্যাটাস চেক করবেন,E-KYC Update,

E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download

WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download. পশ্চিমবঙ্গ সরকার রেশন কার্ডের (Digital Ration Card Status Check) দ্বারা প্রতিমাসে নিয়মিত যেমন রেশন দোকান থেকে খাদ্যশস্য সংগ্রহ করার ব্যবস্থা করেছে ,আবার অন্য দিকে রেশন কার্ড হলো একটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ নথি।এখন প্রায় প্রত্যেকেরই রেশন কার্ড আছে ,কিন্তু আমরা খুব সহজেই আমাদের e ration card status check এবং e ration card download করতে পারবো। তার জন্য অবশই Ration card র সাথে aadhar link করা থাকতে হবে।WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download

খাদ্য ও সরবরাহ বিভাগের একটি গুরুত্বপূর্ণ উদ্দেশ্য হলো পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের সাধারণ জনগণকে আরও দ্রুত এবং স্বচ্ছ ভাবে রেশন পরিষেবা প্রদান করা।তাই E-ration card application status নম্বর এবং digital ration card নম্বরের কোনো পরিবর্তন হবে না।

খাদ্য ও সরবরাহ বিভাগের এই উদ্দেশ্য সামনে রেখে রেশন কার্ডের জন্য আবেদন, অনুমোদন ও প্রক্রিয়াকরণ সম্পূর্ণভাবে অনলাইনে করা হয়েছে।স্পিড পোস্টের মাধ্যমে ডিজিটাল রেশন কার্ড বিতরণ করা শুরু হয়েছে WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download

WB E-Ration Card 2023 Status Check Online,

WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download.)

পশ্চিমবঙ্গের রেশন কার্ড বিতরণ করে থাকে পশ্চিমবঙ্গের খাদ্য দপপ্তর । প্রত্যেক টি পরিবারকে তাদের আয় ও শর্ত অনুযায়ী একটি করে রেশন কার্ড দেওয়া হয়।যাতে যে সব মানুষ দারিদ্র্যসীমার নীচে থাকা পরিবারগুলিকে আর্থিক সহায়তার করার জন্য গম, চাল, চিনি ও কেরোসিন তেল যুক্তিসঙ্গত মূল্যে দেওয়া হয়।WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download

আপনি যদি দুয়ারে সরকার ক্যাম্পে রেশন কার্ডের জন্য বা অনলাইন আবেদন করে থাকেন ,তাহলে আপনার রেশন কার্ডের স্থিতি চেক করার জন্য কি করবেন? আপনি E-Ration Card Status Check করার জন্য একটি স্মার্ট ফোন বা ল্যাপটপ থাকলি হবে। তাহলে আজকের এই প্রতিবেদনটি আপনার জন্য খুবই উপযোগী।

এই প্রতিবেদন থেকে আপনি জানতে পারবেন, WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download.) কিভাবে ই-রেশন কার্ড অনলাইনে স্যাটাস চেক করবেন?কিভাবে মোবাইল দিয়ে রেশন কার্ড চেক করবেন?নাম দিয়ে রেশন কার্ড নম্বর চেক করার পদ্ধতি ?পশ্চিমবঙ্গ রেশন কার্ড অনলাইন চেক করুন?

এরপরে আপনি আপনার রেশন কার্ড কিভাবে ডাউনলোড করবেন ? রেশন কার্ড লিস্ট কিভাবে চেক করবেন?

Content

WB ই-রেশন কার্ড 2023 কি ? (What is E-Ration Card)

পশ্চিমবঙ্গ সরকার খাদ্য ও সরবরাহ বিভাগের অন্তর্ভুক্ত কর্তৃপক্ষ কর্তৃক জারি করা হয় ই -রেশন কার্ড।এটি একটি Public Distribution System (PDF) Documents, যা সরকার নির্দিষ্ট সময়ে রেশন সামগ্রীর বিশদ বিবরণ সনাক্ত করতে পারে,যা সুবিধাভোগীকে সহায়তা করে। Electrical Power and Distribution Subsystem (EPDS) প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে এটি অনলাইনে সংগ্রহ করে যেতে পারে।ভারত সরকার বিভিন্ন রাজ্য এই সুবিধা দিয়ে থাকে।নতুন দিল্লিতে প্রথম 2015 সালের মার্চ মাসে এই পরিষেবা চালু করা হয়েছিল। পরে অন্য রাজ্যও এই পদ্ধতি গ্রহণ করে।

Details of E-Ration Card (WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download.)

Ration Card Checkরেশন কার্ড চেক
State West Bengal
ObjectiveSupplies food for everyone 
DepermentFood and Supplies, Govt. Of West Bengal
Apply System দুয়ারে সরকার ক্যাম্প Offline
সুবিধা বিনামূলে রেশন বিতরণ করা
Official Website wbpds.wb.gov.in

কিভাবে ই-রেশন কার্ড অনলাইনে স্যাটাস চেক করবেন ? Online Ration Card Status Check Process

Digital Ration card West Bengal : পশ্চিমবঙ্গ খাদ্য দপ্তর কর্তৃক রাজ্যের প্রত্যেক টি পরিবারের জন্য বিনামূল্যে রেশন কার্ডের ব্যবস্থা করেছে,সেই সাথে রেশন কার্ডের মাধ্যমে সরকারী রেশন দেওয়া হয়ে থাকে।এই রেশন পাওয়ার জন্য অবশ্যই আপনার একটি Digital Ration Card এর প্রয়োজন হয়।WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download

আপনি কি ই রেশন কার্ডের জন্ন্য আবেদন করেছেন? এখন দুয়ারে সরকার ক্যাম্পে নতুন রেশন কার্ডের আবেদন করা হচ্ছে বা ভুল সংশোধন এবং কার্ড পরিবর্তন ইত্যাদি কাজ হয়ে থাকে।আপনার রেশন কার্ড অনলাইনে স্ট্যাটাস চেক করবেন? অনলাইনে রেশন কার্ড চেক কিভাবে করতে হয়? তাহলে চলুন সেই সম্পর্কে বিস্তারিত জানাচ্ছি এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে।

রেশন কার্ড চেক করার পদ্ধতি গুলো হলো –

  • প্রথমে আপনাকে আপনার মোবাইল অথবা কম্পিউটারে সাহায্যে যে কোনো একটি browser ওপেন করতে হবে।
  • তারপর আপনাকে রেশন কার্ডের চেক করার জন্য পশ্চিমবঙ্গ খাদ্য দপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট  wbpds.wb.gov.in যেতে হবে।
  • তারপরে ওয়েবসাইটি ওপেন হওয়ার পর আপনি Check Application Status অপশনটি দেখতে পারবেন, সেখানে ক্লিক করবেন।
  • তারপর যে পেজ আসবে তার নিচে দেখবেন Select Form Type এখানে আপনি ক্লিক করে, আপনি যে ফর্ম দ্বারা রেশন কার্ডের জন্য আবেদন করেছে সেটি সিলেক্ট করুন।
  • এবারে তার নিচে দেখুন Enter Full (16/10 Digit) Application Number (Barcode Number) এখন যদি আপনার রেশন কার্ড আবেদনেরApplication No টি থাকে তাহলে সেটি লিখবেন।আর যদি Application No না থাকে তাহলে কিছুই লিখবেন না, ফাঁকা রাখবেন।
  • আপনি রেশন কার্ডের আবেদন করার সময় ফর্ম এ যে মোবাইল নম্বরটি দিয়েছেন তা Enter 10 digit Mobile No এই বক্সের নিচে লিখুন।
  • তারপরে নিচের দেওয়া আছে Captcha code টি নির্ভুল ভাবে লিখবেন।
  • এরপরে Search এ ক্লিক করবেন।
  • এখন আপনি আপনার রেশন কার্ড হয়েছে কী না তা দেখতে পাবেন। যদি Ration Card হয়ে যায় তাহলে অবশই আপনার রেশন কার্ডের নম্বরটি দেখাবে।

আর যদি Ration Card না হয়ে থাকে তাহলে, আবার কিছুদিন পর আরও চেক করবেন রেশন কার্ডের জন্য।

কিভাবে মোবাইল দিয়ে রেশন কার্ড চেক করবেন ?(How to check ration card with mobile)

Digital Ration card West Bengal: WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download পশ্চিমবঙ্গ খাদ্য দপ্তর কর্তৃক রাজ্যের প্রত্যেক পরিবারের জন্য বিনামূল্যে রেশন কার্ডের দ্বারা সরকারী রেশন দেওয়া হয়।আপনার পরিবারের সকলের ডিজিটাল রেশন কার্ড চেক করার জন্য আমরা আপনাদেরকে সমস্ত তথ্যগুলি বিস্তারিত ভাবে জানাচ্ছি।চলুন জেনে নেওয়া যাক মোবাইল দিয়ে Ration Card Check কিভাবে করবেন। মোবাইল দিয়ে পশ্চিমবঙ্গে রেশন কার্ড অনলাইন চেক কোকরার জন্য নিচের ধাপ গুলো অনুসরণ করুন-

  • প্রথমে রেশন কার্ড স্ট্যাটাস চেক করার জন্য আপনাকে যেতে হবে ,পশ্চিমবঙ্গ খাদ্য দপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটি .
  • অফিসিয়াল ওয়েবসাইটি ওপেন হওয়ার পরে Check Application Status এ ক্লিক করুন।
  • তারপর উপরে কিছু অপসন গুলি আসবে। যেমন (HOME, GRIEVANCEE, E-CITIZEN, FOR OFFICIAL PURPOSE)
  • তারপর আপনি Check Application Status এ ক্লিক করবেন।
  • এরপরে আপনি ration card এর জন্য কোন যে ফর্ম জমা করেছেন সেটি সিলেক্ট করবেন অর্থাৎ ( FORM- III /FORM -IV /FORM -V /FORM -VI /FORM -VII /FORM -VIII /FORM -IX /FORM -X  ইত্যাদি )
  • এখন রেশন কার্ড চেক করার জন্য আপনার application number 16/10 অথবা মোবাইল নম্বর দিতে হবে।
  • এরপরে Captcha Code দিয়ে Search এ ক্লিক করুন। তাহলেই আপনি আপনার রেশন কার্ডের স্ট্যাটাস চেক করে দেখতে পাবেন।
  • এখন আপনি আপনার রেশন কার্ড হয়েছে কী না তা দেখাবে পাবেন।অরে যদি Ration Card হয়ে যায়, তবে আপনার রেশন কার্ডের নম্বরটি এখানে দেখাবে, নম্বরটি লিখে রাখবেন।

কিভাবে নাম দিয়ে রেশন কার্ড নম্বর চেক করবেন ? (How to Check Ration Card Number by Name)

WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download আপনি কি আপনার রেশন কার্ড নাম দিয়ে চেক করতে চাইছেন? কিভাবে রেশন কার্ড নাম দিয়ে চেক করবেন? আপনার রেশন কার্ড নম্বর নাম দিয়ে চেক করার জন্য এই ধাপটি অনুসরণ করুন –

  • প্রথম, আপনি খাদ্য ও সরবরাহ দপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইডে ভিজিট করতে হবে।ওয়েবসাইডে হলো wbpds.wb.gov.in
  • ওয়েবসাই ওপেন হওয়ার পর ডানদিকে উপরে অপসন তিন নম্বর এ ক্লিক করুন।
  • এরপর আপনি ‘e-citizen’ অপশনে ক্লিক করুন।
  • আবার অনেক গুলো অপশন আসবে তারমধ্যে প্রথমে দেখতে পাবেন “Search Your Digital Ration Card Details” এই অপসন ক্লিক করুন।
  • তারপর আপনি 2টি অপসন পাবেন ‘Name‘ এবং ‘Ration Card Number‘ যে কোনও একটি ক্লিক করুন।
  • এর পর আপনার District নাম ও আপনার Block/ Municipality এবং GP/Ward নামে ক্লিক করুন।
  • এখন আপনি আপনার নামটি সঠিকভাবে লিখুন।
  • এরপরে আপনি Search এ ক্লিক করলেই আপনার সমস্ত তথ্য চলে এসে যাবে।

নাম দিয়ে রেশন কার্ড চেক করতে কী নথি প্রয়োজন ?(What is required to check ration card by name)

WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download আপনি যখন আপনার রেশন কার্ডটি নাম দিয়ে চেক করবেন,তার জন্য আপনার কিছু নথি প্রয়োজন তা হলো –

  • রেশন কার্ড নম্বর 
  • ব্লক বা মিউনিসিপালিটি 
  • জেলা
  • গ্রাম পঞ্চায়েত বা ওয়ার্ড
  • নাম

পশ্চিমবঙ্গ রেশন কার্ড কি ?(West Bengal Ration Card)

West Bengal Ration Card:WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download রেশন কার্ড (Ration Card) এমন একটি জরুরী নথি,যেটি আমাদের জীবনের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবেই জড়িয়ে আছে, এছাড়াও অন্যদিকে ঠিক তেমনভাবেই দেশের কোটি কোটি মানুষের জীবনের অন্যতম বড় সংস্থান হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ। যারা নিম্ন দরিদ্র মধ্যবিত্ত পরিবারের মানুষ তাদের কাছে এই রেশন কার্ডের গুরুত্ব খুবই অপরিসীম।E-Ration Card download 2023

এমন অনেকেই আছেন যারা রেশন কার্ডের মাধ্যমে বিনামূল্যে খাদ্যদ্রব্য পেয়ে থাকেন। দরিদ্র মানুষ গুলোর জীবনে এই রেশন কার্ডের গুরুত্ব অনেকটাই বেশি। কারণ এই রেশন কার্ডের মাধ্যমে তাদের প্রত্যেকের মুখে অন্য জোটে। পশ্চিমবঙ্গ সরকার (Government Of West Bengal) এবার এই রেশন কার্ড থেকে বিনামূল্যে রেশন দিয়ে থেকে।

কিভাবে পশ্চিমবঙ্গ রেশন কার্ড অনলাইন চেক করুন (Check West Bengal Ration Card Online)

পশ্চিমবঙ্গ রেশন কার্ড অনলাইন চেক করুন ঘরে বসেই WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download করুন

  • প্রথমে আপনি পশ্চিমবঙ্গ সরকারের খাদ্য ও সরবরাহ দফতরের ওয়েবসাইটে wbpds.wb.gov.in ভিজিট করতে হবে।
  • তারপরে সেখানে ‘Check Your Ration Card Status’ অপশনে ক্লিক করবেন ।
  • এখন আবেদনকারীর ব্লক ও পুরসভার নাম লিখতে হবে।
  • রেশন কার্ডের সব তথ্য সঠিক ভাবে লিখবেন। তারপরে সার্চ করবেন।

কিভাবে রেশন কার্ড লিস্ট চেক করবেন?(How to Check Ration Card List)

Digital Ration Card লিস্টে আপনার নাম আছে তো ? WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download চেক করুন ঘরে বসেই। যদি রেশন কার্ডের লিস্টে বা তালিকায় আপনার নাম থেকে তবেই সুবিধা পাবেন।চাইলে আপনি খুব সহজে, বাড়ি বসেই রেশন কার্ডের লিস্ট বা তালিকা যাচাই করেনিতে পারেন।তারজন্য আপনার প্রয়োজন একটি স্মার্টফোন ও ভালো ইন্টারেনেট।রেশন কার্ড লিস্ট কিভাবে চেক করবেন? তা নিচে আলোচনা করা হলো –

  • প্রথমে আপনাকে রেশন কার্ড এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইট https://wbpds.gov.in/ এ যাবেন।
  • হোমপেজে ওপেন হলে “Report on NFSA” অপশনে ক্লিক করুন।
  • সেখানে একটি drop-down মেনু খুলবে।
  • যেখানে আপনাকে “Search Beneficiary Details by Name” এ ক্লিক করতে হবে।
  • এর পরে, আপনাকে নিম্নলিখিত বিকল্পগুলি সঠিকভাবে লিখতে করতে হবে , তা হলো –Search By Name / Ration Card Number, District, Block/Municipality, GP/Ward,Name
  • এরপরে আপনি ‘Submit’ অপশনে ক্লিক করুন।
  • এইভাবে আপনি আপনার রেশন কার্ডের লিস্ট চেক করতে পারবেন।
  • প্রয়োজনে আপনি এই তালিকা প্রিন্ট বা ডাউনলোড করতে পারেন।

কিভাবে ডিজিটাল রেশন কার্ড ডাউনলোড করবেন ?(How to Download Digital Ration Card)

নতুন রেশন কার্ড (WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download) অনলাইনে আবেদনের করার পরে ,আপনার ই-রেশন কার্ড ডাউনলোড করতে পারবেন খুব সহজেই । কিভাবে ডাউনলোড করবেন নিচে থেকে জেনে নিন –

  • ই-রেশন কার্ড ডাউনলোড করার জন্য প্রথমে আপনাকে আবার খাদ্য দপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে www.food.wb.gov.in ভিজিট করতে হবে ।
  • এরপরে আপনি Service মেনুতে গিয়ে E Ration Card অপশনে ক্লিক করবেন।
  • পরের পৃষ্ঠা তে Click to Download E Ration Card অপশন টি ক্লিক করুন।
  • এখন আপনার Ration Card Number বসিয়ে Captcha code লিখে search করুন।
  • তারপরে আপনার সামনে রেশন কার্ডের বিস্তারিত তথ্য বিবরণ আসবে।
  • এবার রেশন কার্ড ডাউনলোড করার জন্য Download E Ration Card অপশনে ক্লিক করুন।
  • আপনি PDF format এ পরিবারের সকল সদস্যের E Ration Card ডাউনলোড করতে পারেন।

ই-রেশন কার্ডে E-KYC কি?(What is E-KYC in E-Ration Card)

ই-রেশন কার্ডে E-KYC অর্থাৎ Electronic Know Your Customer মূলত এই এমন একটি প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে E-KYC করা হয়। বলা যাই E-KYC হল অনুমোদিত সংস্থা ও এজেন্ট যে আধার প্রমাণীকরণের মাধ্যমে ডিজিটালভাবে গ্রাহকের সঠিক পরিচয় ও ঠিকানা যাচাই করে। WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download

কিভাবে পশ্চিমবঙ্গ রেশন কার্ডের E-KYC আপডেট করবেন ? (How to Update E-KYC of West Bengal Ration Card)

(WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download.) রেশন কার্ডে E-KYC কি তা জানেন কিন্তু আপনার রেশন কার্ডটি e-KYC করা আছে কি ? নাকি নেই? যদি এমন প্রশ্ন থাকে, তবে বেশি চিন্তার কোনো কারন নেই। খাদ্য দপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে আপনার রেশন কার্ডের E-KYC আপডেট খুব সহজেই চেক করে দেখে নিতে পারবেন। আপনার রেশন কার্ড অথবা আপনার পরিবারের রেশন কার্ড গুলো Aadhar Link আছে নাকি e-KYC করার Status এ দেখা যাবে।চলুন e-KYC করার জন্য নিচের কয়েকটি ধাপ ফলো করুন-

  • প্রথমে আপনাকে খাদ্য দপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে।www.food.wb.gov.in লিংকে ক্লিক করে সরাসরি ওয়েবসাইটে আসুন।
  • এরপর আপনি LINK AADHAAR WITH RATIONCARD অপশনে ক্লিক করবেন ।
  • তার পরবর্তী পেজে Ration Card Number বসিয়ে সার্চে এ ক্লিক করে দেখে নিন। আপনার রেশন কার্ড ও আধার কার্ড লিংক রয়েছে নাকি নেই।এছাড়াও অনেকের লিংক থাকা সত্ত্বেও রেশন কার্ড E-KYC করতে বলা হয়।
  • এরপর আপনি Link aadhar and mobile number অপশনে ক্লিক করবেন ।
  • তারপরে পরবর্তী ধাপে Ration Card Number বসিয়ে দিয়ে Send OTP অপশনে ক্লিক করুন।
  • আপনার আধার কার্ড এর সাথে যে মোবাইল নাম্বার লিংক করা আছে , সেই মোবাইল নাম্বার এ একটি OTP আসবে।তা লিখে সাবমিট এ ক্লিক করুন।
  • এরপর আধার কার্ড এর সম্পূর্ণ তথ্য দেখা যাবে।যেমন- ছবি ,নাম,বয়স,ঠিকানা, ইত্যাদি সবকিছু নির্ভুল থাকলে Verify & Submit এ অপশনে ক্লিক করুন।
  • আপনার আধার কার্ড রেশন কার্ড লিংক হয়ে যাবে। আধার কার্ডের সাথে মোবাইল নাম্বার লিংক না থাকলে আপনার নিকটবর্তী খাদ্য দপ্তর অফিসে অথবা বাংলা সহায়তা কেন্দ্রে গিয়ে রেশন কার্ড E-KYC করতে পারবেন।

(WB E-Ration Card 2023 How to Status Check Online,E-KYC Update, download.) আপনার রেশন কার্ডের সাথে আধার কার্ড লিঙ্ক করার জন্য প্রথমত একটি লাপটপ, ডেক্সটপ বা মোবাইল থাকা অত্যন্ত প্রয়োজন।রেশন কার্ডের লিঙ্ক প্রক্রিয়া করতে গেলে ককিভাবে করবেন দেখুন –

  • আপনাকে রাজ্য সরকারের খাদ্য ও সরবরাহ দফতরের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে https://food.wb.gov.in/ ভিজিট করতে হবে।
  • ওয়েবসাইট ওপেন হওয়ার পরে ডান দিকে বেশ কিছু অপশন আছে।সেখান থেকে আপনি ‘Link Ration Card with Aadhaar Card’ অপশনটি ক্লিক করুন।
  • এই অপশনে ক্লিক করার পর একটি নতুন উইনডো ওপেন হবে।এরপরে আপনার মোবাইল ফোন নম্বর লিখুন।
  • এবার আপনি ‘Get OTP’ অপশনে ক্লিক করুন।
  • এখন আপনার ফোনে যে ওটিপি আসবে সেটি নির্দিষ্ট জায়গায় টাইপ করুন। এই পরিষেবা মোবাইল ফোন থেকে করলে অটো-রিডিং অপশন থাকে। তাই ওটিপি আর আলাদা করে টাইপ করতে হবে না।
  • এরপরে একটি নতুন উইনডো আসবে।
  • এবার সবচেয়ে বেছে নিন নিজের রেশন কার্ডের ধরন।
  • এবার আপনার Ration Card Number টাইপ করে ‘search’ অপশনে ক্লিক করুন।
  • নতুন উইনডো ওপেন হলে সেখানে নিজের আধার কার্ডের তথ্য দিতে হবে।
  • এবার ক্লিক করতে হবে ‘Continue‘ বাটনে ক্লিক করুন।

 ই রেশন কার্ডের সুবিধা 2023 (WB E Ration Card Benefits 2023)

WB ই রেশন কার্ডের কিছু সুবিধা রয়েছে ,তা নিচে উল্লেখ করা হলো –

  • ই-রেশন কার্ড ব্যবহারকারীকে তার রেশনের দোকানে ডিজিটাল রেশন কার্ড নিয়ে যেতে হবে না ,খাদ্যদ্রব্য সংগ্রহ করার জন্য।
  •  ই-রেশন কার্ড ব্যবহারকারীকে রেশনের দোকান থেকে খাদ্যদ্রব্য সংগ্রহ করার জন্য একটি সাধারণ কাগজে মুদ্রিত ই-রেশন কার্ডের একটি অনুলিপি রাখতে হবে।
  •  ই-রেশন কার্ড ব্যবহারকারীকে রেশন দোকান থেকে খাদ্যশস্য পাওয়ার জন্য মোবাইল ফোনে একটি সফট কপি ই-রেশন কার্ড থাকতে পারেন।
  •  ই-রেশন কার্ড ব্যবহারকারীরা  শুধুমাত্র ই-রেশন কার্ড নম্বর রেশন দোকান থেকে খাদ্যশস্য সংগ্রহ করতে হবে।

WB ডিজিটাল রেশন কার্ডের কি যোগ্যতা দরকার (Digital Ration Card Eligibility)

নতুন WBPDS স্কিমের সুবিধাগুলি পাওয়ার জন্য যোগ্য হতে হবে। যে যে কারণে আপনি WBPDS স্কিমের সুবিধাগুলি পাবেন। অবশ্যই আবেদনকারীকে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে নিম্নলিখিত যোগ্যতার মানদণ্ডগুলি অনুসরণ করতে হবে-

  • প্রথমত, ব্যবহারকারীকে অবশ্যই পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
  • ব্যবহারকারীর অবশ্যই রেশন কার্ড থাকতে হবে ।
  • যে ব্যবহারকারী একটি অস্থায়ী রেশন কার্ড এর জন্য আবেদন করেছেন, তাদের রেশন কার্ডের মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে, তাহলে তিনি এই প্রকল্পের অধীনে একটি নতুন রেশন কার্ডের জন্য আবেদন করতে পারবেন।
  • নবদম্পতিরাও নতুন রেশন কার্ডের জন্য আবেদন করতে পারেন।

ই-রেশন কার্ডের মূল বৈশিষ্ট্য কি (Key Features of E-Ration Card)

  • আপনি জানেন ডিজিটাল রেশন কার্ড-এ যে সব সুবিধা পাওয়া যায় ই-রেশন কার্ডেও সেই সব সুবিধা পাওয়া যায় ।
  • আপনি যে কোনও প্রয়োজনে ডিজিটাল রেশন কার্ডের মতোই ই-রেশন কার্ডও গ্রহণ করা যায়।
  • রেশন কার্ড এর QR কোডের মাধ্যমে যে কেউ যে কোনও সময় অনলাইনে ই-রেশন কার্ড যাচাই করতে পারেন।
  • ই-রেশন কার্ড ব্যাবহারকারী যে কেউ ব্যক্তি ওয়েবসাইট থেকে তাঁর ই-রেশন কার্ডের একটি কপি ডাউনলোড করতে পারবেন।
  • রেশনের দোকান থেকে খাদ্যশস্য সংগ্রহ করার জন্য ই-রেশন কার্ড ধারককে তার ডিজিটাল রেশন কার্ড বহন করতে হবে না।
  • আপনি চাইলে ই-রেশন কার্ডের একটি হার্ড কপি নিয়ে যাওয়া যেতে পারেন অথবা, মোবাইল ফোনে একটি সফট কপি ই-রেশন কার্ড দেখালেও কাজ হয়ে যায়।

কয়টি রেশন কার্ডে E-KYC অনুমোদনের জন্য কত সময় লাগে? (How much time does it take for E-KYC approval on how many ration cards)

রেশন কার্ডে অফলাইন E-KYC পদ্ধতিটি সম্পূর্ণ করতে প্রায় এক সপ্তাহ সময় লাগে।আর যেখানে আপনি অনলাইন E-KYC নিবন্ধন একটি কম সময় নিতে পারে। E-KYC অনুমোদন বিভিন্ন কারণের উপর ভিত্তি করে পরিবর্তিত হয়ে থেকে , যেমন ধরুন আবেদনপত্রে কোনো ভুল ত্রুটি বা অসঙ্গতি কম অস্পষ্টতা থাকার জন্য ।

আরও পড়ুন-শিক্ষাশ্রী স্কলারশিপ(Sikshashree Scholarship)2023 আবেদন পদ্ধতি যোগ্যতা ও সুবিধা

 জেলা আদালতে কর্মী নিয়োগ, আবেদন করুন মাধ্যমিক পাশে।

এয়ারপোর্টে কর্মী নিয়োগ,আবেদন করুন।

আধার কার্ডের মতোই বাধ্যতামূলক আপার কার্ড।অনলাইনে আবেদন

পশ্চিমবঙ্গে RKSY II রেশন কার্ড কি?

পশ্চিমবঙ্গে RKSY I রেশন কার্ড ব্যাবহারকারীরা প্রতি মাসে নিয়মিত মাথাপিছু 2 কেজি চাল , 3 কেজি গম পাওয়ার অধিকারী।এছাড়াও অন্যদিকে, RKSY II রেশন কার্ড ব্যাবহারকারীরা প্রতি মাসে নিয়মিত মাথাপিছু 1 কেজি চাল এবং 1 কেজি গম দেওয়া হয়ে থেকে ৷

ভারতের কোন রাজ্য ই রেশন কার্ড চালু হয় ?

মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল 27 মার্চ, 2015 সালে জাতীয় রাজধানী দিল্লিতে দেশের প্রথম ই-রেশন পরিষেবা চালু করেছেন।

কিভাবে নতুন রেশন কার্ড চেক করবেন ?

আপনি কম্পিউটারের ব্রাউজারে গিয়ে টাইপ করবেন https://food.wb.gov.in। দ্বিতীয় ধাপে আপনি  রেশন কার্ডের আবেদনের বর্তমান অবস্থা জানার জন্য বিশেষ পরিষেবাগুলিতে গিয়ে ক্লিক করবেন।
তারপরে নিচের দেওয়া আছে Captcha code টি নির্ভুল ভাবে লিখবেন।
এরপরে Search এ ক্লিক করবেন।এইভাবে আপনি নতুন রেশন কার্ড চেক করতে পারবেন।

One thought on “E-Ration Card download 2023: কিভাবে রেশন কার্ড স্যাটাস চেক করবেন,E-KYC Update,

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *